Featuredপ্রচ্ছদ

সুবর্ণচরের দিকে ধেয়ে আসছে আগ্রাসী মেঘনার ভাঙ্গন

ভিটেমাটি হারিয়ে অনেকইে নিস্ব: ।। অনেকেই দিন কাটাচ্ছে সর্বস্ব হারানোর আতংকে ।। ভাঙ্গনের দূশ্চিন্তা গ্রাস করছে সুবর্ণচরবাসীকেও।।

কামাল চৌধুরী, মেঘনা’র কূল থেকে ফিরে- সুবর্ণচরের দিকে প্রবল বেগে ধেয়ে আসছে মেঘনার ভাঙ্গন। অব্যাহত ভাঙ্গনে হাতিয়া উপজেলার মানচিত্র প্রায় বিলীন হওয়ার পর এবার সুবর্ণচরের মানচিত্র বিলীন হওয়ার আশংকা দেখা দিয়েছে। হাতিয়ার চানন্দী (নলেরচর) ইউনিয়নের পয়েন্ট দিয়ে প্রতিদিন ঘরবাড়ী বিলীন হচ্ছে নদী ভাঙ্গনে। সরেজমিনে স্থানীয় জনতা ঘাটে গিয়ে জানা যায়, গত প্রায় ৬/৭ বছর ধরে ভাঙ্গন অব্যাহত রয়েছে। ইতিমধ্যে ভাঙ্গনে বিলীন হয়েছে হাতিয়ার কেয়ারিংচর, চরবাসার ও লেসকির চরসহ কয়েকটি গুরুত্বপূর্ণ জনপদ।

ভাঙ্গনে শত শত পরিবার ভিটে-মাটি হারিয়ে  বর্তমানে সুবর্ণচরসহ দেশের বিভিন্ন স্থানে নতুন জীবনের আশায় ঘর বেঁধেছে । অনেকে আবার সর্বস্ব হারিয়ে খোলা আকাশের নিছে মানবেতর জীবন যাপন করছে। চলতি বর্ষা মৌসুমে ভাঙ্গন আরো তীব্র আকার ধারন করেছে।

ভাঙ্গন বর্তমানে সুবর্ণচর থেকে আর মাত্র কয়েক কিলোমিটার দুরে অবস্থান করছে। ভাঙ্গনের তীব্রতা অব্যাহত থাকলে সুবর্ণচরের মানচিত্রে আঘাত হানতে বেশিদিন সময় লাগবেনা বলে জানান স্থানীয়রা। কিছুদিন আগে হাতিয়ার নদী ভাঙ্গন রোধে ব্লক বসানো হবে বলে শোনা গেলেও আদৌ তা বাস্তবায়ন হয়নি। ফলে হাতিয়ার চানন্দী ও হরনী ইউনিয়নের পাশাপাশি সুবর্নচরের মানুষের মাঝেও হতাশা বিরাজ করছে। নদী ভাঙ্গনরোধে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের দৃষ্টি আকর্ষণ করছে হাতিয়া ও সুবর্ণচর উপজেলাবাসী।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: কপিরাইট সুবর্ণবার্তা !!
Close
Close